এমবাপ্পের জোড়া গোলে পিএসজির বড় জয়

0
25

স্পোর্টস ডেস্ক
ম্যাচের শুরুতেই ১০ জনের দলে পরিণত হওয়া নিমকে ৪-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে পিএসজি। দলের জয়ে জোড়া গোল করেছেন কিলিয়ান এমবাপ্পে।

বাকি দুই গোল আলেস্সান্দ্রো ফ্লোরেন্সি ও পাবলো সারাবিয়ার।

শুক্রবার রাতে নিমের মাঠে অনুপস্থিত ছিলেন পিএসজির নিয়মিত একাদশের অনেকেই। আন্তর্জাতিক ম্যাচের ব্যস্ততা শেষ। এদিকে সামনে আছে চ্যাম্পিয়নস লিগ ও লিগ ওয়ানের গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচ। তাই মূল একাদশের নেইমার, আনহেল দি মারিয়া, মাউরো ইকার্দিদের ছাড়াই একাদশ সাজান পিএসজি কোচ টমাস টুখেল। কিন্তু মাঠে তাদের অভাব বুঝতেই দেননি এমবাপ্পেরা।

ম্যাচের শুরু থেকে আধিপত্য বিস্তার করে খেলা পিএসজির মিডিফিল্ডার লেয়ান্দ্রো পারেদেস নবম মিনিটেই চোট নিয়ে মাঠ ছাড়েন। এর তিন মিনিট পর পিএসজির রাফিনিয়োকে ফাউল করে লাল কার্ড দেখে মাঠ ছাড়েন নিমের ডিফেন্ডার লোইক।

রক্ষণে একজন কমে যাওয়ার ফল ভোগ করে নিম। একের পর এক আক্রমণে স্বাগতিক রক্ষণকে ব্যাতিব্যস্ত করে রাখে পিএসজি। ৩১তম মিনিটে দারুণ সুযোগ পেয়েছিল দলটি। কিন্তু বদলি মিডফিল্ডার আন্দের হেরেরার হেড ঠেকিয়ে দেন স্বাগতিক গোলরক্ষক বাতিস্ত রেনেত। তবে এক মিনিট পরেই রাফিনিয়োর থ্রু বলে প্রতিপক্ষের ডি-বকে ঢুকে গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন এমবাপ্পে।

গোল হজমের পর নিমের গোলরক্ষক রেনেত যেন এমবাপ্পেদের সামনে প্রাচীর হয়ে দাঁড়ান। প্রথমার্ধে বেশ কয়েকটি দারুণ সেভ করেন তিনি। গুয়ে এবং এমবাপ্পের দুটি হেড দারুণ দক্ষতায় ঠেকিয়ে দেন তিনি।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেও বেশ কয়েকটি প্রচেষ্টা ঠেকিয়ে দেন নিমের গোলরক্ষক। এছাড়া ৬৬তম মিনিটে সারাবিয়ার ক্রসে ফ্লোরেন্সির ভলি পোস্টে লাগে। ৭৬তম মিনিটে ইতালিয়ান ডিফেন্ডারের হেড লাগে পোস্টে। এর কিছুক্ষণ পর সারাবিয়ার হেডে বাড়ানো বলে লক্ষ্যভেদ করেন তিনি।

খেলার ৮৩তম মিনিটে ফের একবার জালের ঠিকানা খুঁজে পান এমবাপ্পে। এবারও গোলের উৎস সারাবিয়া। স্প্যানিশ মিডফিল্ডারের থ্রু বল ধরে ডি-বক্সের ভেতর থেকে ডান পায়ের জোরালো শটে বল জালে জড়িয়ে দেন ফরাসি ফরোয়ার্ড। এরপর সতীর্থদের দিয়ে ২ গোল করানো সারাবিয়া নিজেও গোলের দেখা পান। ৮৮তম মিনিটে কলিন দাগবার পাস থেকে দলের চতুর্থ গোলটি করেন তিনি।

এই জয়ে ১৫ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে উঠে এলো পিএসজি। সমান পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে রেনে।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here